চোখের বিভিন্ন অংশের অবস্থান ও কাজ

চোখের বিভিন্ন অংশের অবস্থান ও কাজ

চোখের অংশঅবস্থান কাজ
অশ্রু গ্রন্থিঅক্ষিকোটরের উপরিতলচোখকে আর্দ্র রাখা এর প্রধান কাজ।
অ্যাকুয়াস হিউমারকর্নিয়া এবং লেন্সের মধ্যভাগপ্রতিসারক মাধ্যম হিসেবে কাজ করে।
আইরিশঅক্ষিগোলকের সম্মুখভাগতারারন্ধ্রকে সংকুচিত ও প্রসারিত হতে সাহায্য করে।
ইয়োলো স্পটরেটিনার উপরিভাগসর্বাপেক্ষা ভালো প্রতিবিম্ব গঠন হয়।
কনজাংটিভাকর্নিয়ার বাইরের আচ্ছাদনকর্নিয়াকে রক্ষা করা।
কর্ণিয়াঅক্ষিগোলকের সম্মুখ ভাগপ্রতিসারক মাধ্যম এবং আলোকরশ্মি কেন্দ্রীভূত করা।
কোণ কোশরেটিনাউজ্জ্বল আলো ও বর্ণ শোষণ করা।
কোরয়েডঅক্ষিগোলকের পশ্চাদভাগরেটিনা রক্ষা ও বিচ্ছুরিত আলোর প্রতিফলন রোধ।
পিউপিলআইরিসের মধ্যভাগচোখে আলোক রশ্মি প্রবেশ করায়।
ব্লাইন্ড স্পটরেটিনা এবং অপটিক স্নায়ুর সংযোগস্থলপ্রতিবিম্ব গঠন না করা।
ভিট্রিয়াস হিউমারলেন্স ও রেটিনাপ্রতিসারক মাধ্যম হিসেবে কাজ করে।
রড কোশরেটিনামৃদু আলো শোষণ।
রেটিনাঅক্ষিগোলকের পশ্চাদ ভাগবস্তুর প্রতিবিম্ব গঠন করা।
লেন্সআইরিসের পশ্চাদভাগআলোক প্রতিসরণ ঘটানো এবং রশ্মিকে রেটিনার উপর কেন্দ্রীভূত করা।
সিলিয়ারি বডিআইরিশ ও কোরোয়েডের সংযোগস্থললেন্সের উপযোজনে সহায়তা করে।
স্কেলেরাঅক্ষিগোলকের পশ্চাদভাগঅক্ষিগোলকের পশ্চাদ ভাগের স্তর রাখা করা।
চোখের বিভিন্ন অংশ ও তার কাজ

Leave a Comment

Your email address will not be published.

error: Alert: Content is protected !!